সোমবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
চিত্র বিচিত্র, প্রচ্ছদ ‘এই হিরোরা না থাকলে কাপড় খুলে নাচতে হত’

‘এই হিরোরা না থাকলে কাপড় খুলে নাচতে হত’


পোস্ট করেছেন: নিউজ ডেস্ক | প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৮ , ২:২১ অপরাহ্ণ | বিভাগ: চিত্র বিচিত্র,প্রচ্ছদ


টিনসেল টাউনের নাম শুনলেই জিভ দিয়ে জল ঝরে আপনার-আমার মতো সাধারণ মানুষদের। ভাবি, কী সুখেই না আছেন বলিউডের নায়ক-নায়িকারা।

নায়কেরা সুখে থাকলেও নায়িকারা যে বাস্তবে কতটা সুখী, নিরাপদ, বলিউড যে নায়িকাদের জন্য ‘স্বর্গরাজ্য’ নয়, সেই অভিযোগ নায়িকারা নিজেরাই জানিয়েছেন অনেকবার। অসম বেতন হোক বা ছবিতে নায়িকাদের চরিত্র, প্রতিটি ক্ষেত্রেই নায়কদের থেকে এখনও পিছিয়ে তাঁরা।

সঙ্গে গোদের ওপর বিষফোঁড়া শ্লীলতাহানির অভিযোগ তো আছেই। শ্যুটিং সেটে অনেক সময়ই সহ-অভিনেতা বা পরিচালকদের হেনস্থার মুখে পড়তে হয় তাঁদের। কেউ কেউ মুখ খোলেন। কেউ আবার পেশার খাতিরে মুখ বুঁজে সহ্য করে নেন সব।

সম্প্রতি, তনুশ্রী দত্ত সেই দিকেই আবার ইঙ্গিত করেছেন। তাঁর অভিযোগ নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে। নানা নাকি ছবির সেটে মারাত্মক অশ্লীল আচরণ করেছিলেন। যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন নানা। এবার তিনি আরও একটি ঘটনার উল্লেখ করেছেন।

‘চকোলেট-ডিপ ডার্ক সিক্রেটস’ ছবির শ্যুটিং-এর সময় আরও একটি ঘটনা সামনে এনেছে বলিউডে নায়িকাদের দুরবস্থার কথা। তনুশ্রী জানিয়েছেন, সেদিন সেটে উপস্থিত ছিলেন ইরফান খান, সুনীল শেট্টি।

ইরফানের একটি ক্লোজ আপ শট নেওয়ার ছিল। তার জন্য হঠাত্‍ই পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রী তনুশ্রীকে বলেন, ‘কাপড়ে উতরকে নাচো’! পরিচালকের এই নির্দেশ শুনে শুধু অবাকই নয়, লজ্জায় প্রায় কেঁদে ফেলেছিলেন তনুশ্রী। শুধুমাত্র ইরফানকে কিউ দেওয়ার জন্য তাঁকে সেদিন পোশাক খুলতে বলেছিলেন পরিচালক!

যদিও ইরফান সেদিন তীব্র প্রতিবাদ করেছিলেন। তিনি আপত্তি করে বলেন, নিজের শট তিনি নিজেই দিতে পারবেন। তনুশ্রীর কোন কিউ তাঁর প্রয়োজন নেই।

সেই সেটে উপস্থিত সুনীল শেট্টিও পরিচালকের এই নির্দেশের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলেন। এই দু’জনের কাছে তনুশ্রী যে কৃতজ্ঞ, সেটা জানাতেও ভোলেননি। তনুশ্রী আরও বলেছেন, এরকমই কিছু মুষ্টিমেয় ভদ্র মানুষ বলিউডে আছেন। যাঁরা নায়িকাদের অসম্মানের প্রতিবাদ করেন। সেদিন ইরফান এবং সুনীল না থাকলে তাঁকে সত্যিই সবার সামনে ‘কাপড়’ খুলতে হত।

Comments

comments

Close