সোমবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
জাতীয়, প্রচ্ছদ, বিভাগীয় সংবাদ, রাজনীতি, শোক বঙ্গবন্ধুর ৪৪ তম শাহাদাতবার্ষিকী গাজীপুর মহানগরের গাছা থানায় অনুষ্ঠিত

বঙ্গবন্ধুর ৪৪ তম শাহাদাতবার্ষিকী গাজীপুর মহানগরের গাছা থানায় অনুষ্ঠিত


পোস্ট করেছেন: বার্তা বিভাগ ৪ | প্রকাশিত হয়েছে: আগস্ট ৩১, ২০১৯ , ৯:৫৯ অপরাহ্ণ | বিভাগ: জাতীয়,প্রচ্ছদ,বিভাগীয় সংবাদ,রাজনীতি,শোক


মোঃ কামাল উদ্দিন ঃ

মহান স্বাধীনতার স্থপতি, মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদাত বার্ষিকী মহানগরের গাছা থানায় ৩১ আগস্ট অনুষ্ঠিত হয়েছে। গাছা থানার আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে শাহাদাত বার্ষিকী পালিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন আলহাজ্ব মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল এমপি, প্রতিমন্ত্রী যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। বিশেষ অতিথি ছিলেন অ্যাডভোকেট আজমত উল্লা খান, সভাপতি গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ, আলহাজ্ব এডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম,মেয়র গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন ও সাধারণ সম্পাদক গাজীপুর মহানগর আওয়ামীলীগ।

আমন্ত্রিত অতিথি ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব ডাঃ মোজাফফর হোসেন, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ, মোঃ শহিদুল্লাহ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ, আলহাজ্ব সিরাজুল ইসলাম এম এ সাবেক চেয়ারম্যান গাছা ইউনিয়ন ও সদস্য মহানগর আওয়ামী লীগ, আব্দুর রশিদ মিঞা সদস্য গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ ও সাবেক চেয়ারম্যান গাছা ইউনিয়, মোঃআকরাম হোসেন সরকার গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ, মোঃ আলী আকবর মোল্লা উপদেষ্টা মহানগর আওয়ামী লীগ, আলহাজ্ব কফিল উদ্দিন আহমেদ উপদেষ্টা মহানগর আওয়ামী লীগ,মোাঃইসমাইল হোসেন ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা গাছা থানা জিএমপি, আবদুল্লাহ আল মামুন মন্ডল কাউন্সিলর ৩৫ নম্বর ওয়ার্ড ও বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ কমিটি সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, রঞ্জিতবাবু সভাপতি স্বেচ্ছাসেবক লীগ গাজীপুর মহানগর, হাজী মনির হোসেন কাউন্সিলর ৩৮ নং ওয়ার্ড ও সাধারন সম্পাদক স্বেচ্ছাসেবক লীগ গাজীপুর মহানগর।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন যুবলীগ নেতা আমিন সরকার, যুবলীগ নেতা ওসমান গনি কাজল, যুবলীগ নেতা ইসমাইল হোসেন, যুবলীগ নেতা মোঃ শফিকুল ইসলাম শফিক, জিল্লুর রহমান মুকুল সাবেক কাউন্সিলর ও আওয়ামী লীগ নেতা, মশিউর রহমান আওয়ামী লীগ নেতা, আব্দুল কাদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি গাছা থানা আওয়ামীলীগ। হাজী মোঃ শহিদুল ইসলাম মোল্লা গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগ, মোঃ রুবেল খান মন্টু গাছা থানা আওয়ামী লীগ, হাজি আদম আলী গাছা থানা আওয়ামীলী, মোঃ কামাল উদ্দিন সভাপতি বঙ্গবন্ধু যুব পরিষদ গাজীপুর মহানগর, শেখ মাসুদ রানা সভাপতি গাছা থানা ছাত্রলীগ গাজীপুর মহানগর, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ৩৫ নম্বর ওয়ার্ড সভাপতি প্রার্থী মোঃ বিল্লাল হসেন, হুমায়ুন কবির ৩৩ নং ওয়ার্ড যুবলীগ সভাপতি প্রার্থী।

অনুষ্ঠানে নেতৃবৃন্দ বলেন,পৃথিবীর জঘন্যতম হত্যাকাণ্ড বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ড। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ভোর রাতে সেনাবাহিনীর কিছু উচ্চাভিলাষী বিপথগামী সদস্য ধানমন্ডির ৩২ নম্বর বাসভবনে বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করে। ঘাতকরা শুধু বঙ্গবন্ধুকেই হত্যা করেনি তাদের হাতে একে একে প্রাণ হারান বঙ্গবন্ধুর সহধর্মিণী বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব,বঙ্গবন্ধুর সন্তান শেখ কামাল, শেখ জামাল, শেখ রাসেলসহ পুত্রবধূ সুলতানা কামাল, রোজী জামাল সহ পরিবারের আঠার সদস্য।


বক্তারা বলেন, পৃথিবীর জঘন্যতম হত্যাকাণ্ড থেকে সেদিন বাঁচতে পারেনি বঙ্গবন্ধুর অনুজ শেখ নাসের, ভগ্নিপতি আবদুর রব সেরনিয়াবাত, বঙ্গবন্ধুর ভাগ্নে যুবনেতা, সাংবাদিক মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক শেখ ফজলুল হক মনি, তার স্ত্রী আরজু মনি এবং কর্নেল জামিলসহ পরিবারের সদস্যগণ, সেদিন ঘাতকদের হাতে শাহাদাত বরণ করেন। বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা সেদিন বিদেশে থাকায় প্রাণে বেঁচে যান তারা। ৪৪ তম শাহাদাত বার্ষিকী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন এডভোকেট মহিউদ্দিন আহমেদ মহি সাংগঠনিক সম্পাদক গাজীপুর মহানগর আওয়ামীলীগ।

বক্তারা আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে সেদিন যারা পুরস্কৃত হয়েছিল এবং পার পেয়েছিল, বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে তাদের বিচার করেছেন।
এখনো যারা বঙ্গবন্ধুর খুনি বিদেশে পালিয়ে আছেন তাদেরকে দেশে নেই অবিলম্বে বিচারের রায় কার্যকরের জন্য অনুষ্ঠান থেকে দাবি জানানো হয়। এছাড়াও একুশে আগস্ট এর বর্বর হামলা করে শেখ হাসিনাসহ আওয়ামী লীগকে যারা নিশ্চিহ্ন করে দিতে চেয়েছিল তাদেরকেও এ বাংলার মাটিতে দৃষ্টান্তমূলক বিচার এবং বিচারের রায় দ্রুত কার্যকর করার দাবি জানানো হয় অনুষ্ঠান থেকে।



একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার আসামি তারেক জিয়াসহ যারা এখনো বিদেশে পলাতক অবস্থায় আছে তাদেরকে দেশে এনে বিচারের মুখোমুখি করার জন্য দাবি জানানো হয়। বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্য যারা সেদিন ১৫ আগস্ট ১৯৭৫ শহীদ হয়েছিলেন তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া এবং গরিব দুঃখীর জন্য কাংঙ্গালী ভোজের আয়োজন করেন, অনুষ্ঠানে বিভিন্ন শ্রেণী ও পেশার মানুষ, বিভিন্ন প্রিন্ট এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিক শিক্ষক সহ সর্বস্তরের লোক উপস্থিত ছিলেন।

Comments

comments

Close