মঙ্গলবার, ২০ এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রংপুর বিভাগ সুন্দরগঞ্জে ৪র্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থীর বাল্যবিয়ে

সুন্দরগঞ্জে ৪র্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থীর বাল্যবিয়ে


পোস্ট করেছেন: রংপুর বিভাগীয় ব্যুরো চিফ , | প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৯ , ৯:১৫ অপরাহ্ণ | বিভাগ: রংপুর বিভাগ


ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা প্রতিনিধি : গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে চতুর্থ শ্রেণীর শিক্ষার্থী জেসমিন আক্তার জেমিকে বিয়ে করেছেন রাজমিস্ত্রী ২৫ বছরের যুবক খায়রুজ্জামান মিয়া। এ বিয়ের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ঘটনাস্থল সূত্রে জানা গেছে, গত ১৩ সেপ্টেম্বর গভীর রাতে মেয়ের বাড়িতে উভয় পক্ষের লোকের উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিয়ের কাজ সম্পন্ন হয়। বিয়ে রেজিষ্ট্রি করেন সোনারায় ইউনিয়ন কাজী শাহ আলমের সহকারি আঃ মতিন মিয়া বাবলু। কনে জেসমিন আক্তার জেমি উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের ফতেখাঁ গ্রামের জিয়ারুল ইসলামের মেয়ে ও শিবরাম আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রী। বর খায়রুজ্জামান মিয়া একই ইউনিয়নের বলরাম গ্রামের মৃত খুজিয়া শেখের ছেলে। কাজী শাহ আলম উপজেলার খামার মনিরাম বালিকা বিদ্যা নিকেতনের সহকারি শিক্ষক। সহকারি কাজী আঃ মতিন বাবলু একই ইউনিয়নের পূর্ববৈদ্যনাথ গ্রামের মৃত আঃ খালেক মুন্সির ছেলে। এ ব্যাপারে কাজী শাহ আলমের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করলে তিনি সংবাদ প্রকাশ না করতে অনুরোধ করেন। শাহ আলম কাজীর সহযোগি আঃ মতিন বাবলু বাল্যবিয়ের বিষয়টি অস্বীকার করেন। জেসমিন আক্তার জেমি চতুর্থ শ্রেণীতে অধ্যয়নরত বিষয়টি নিশ্চিত করে শিবরাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রুহুল আমীন বলেন, বাচ্চাটি সর্বশেষ গত ১১ সেপ্টেম্বর ক্লাশে উপস্থিত ছিলো। এরপর খোঁজ নিয়ে দেখি পারিবারিক ভাবে তার বিয়ে হয়েছে। সোনারায় ইউপি চেয়ারম্যান সৈয়দ বদিরুল আহসান সেলিম জানান, এ ধরণের সংবাদ আমার জানা নেই।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ সোলেমান আলী জানান, কোথায় বিয়ে হয়েছে আমার জানা নেই। বাল্যবিয়ের বিষয়টি যদি প্রমাণিত হয় তাহলে কাজীসহ সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Comments

comments

Close