সোমবার, ১ মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
আজকের পত্রিকা, প্রচ্ছদ, রংপুর বিভাগ গাইবান্ধায় নির্যাতনের শিকার নারী-শিশুর প্রতি সহায়তা প্রদানকারী সংস্থার সাথে সমন্বয় সভা

গাইবান্ধায় নির্যাতনের শিকার নারী-শিশুর প্রতি সহায়তা প্রদানকারী সংস্থার সাথে সমন্বয় সভা


পোস্ট করেছেন: বার্তা | প্রকাশিত হয়েছে: ডিসেম্বর ১, ২০২০ , ২:০৬ পূর্বাহ্ণ | বিভাগ: আজকের পত্রিকা,প্রচ্ছদ,রংপুর বিভাগ


মোঃ মিলন মন্ডল গাইবান্ধা প্রতিনিধি :

নির্যাতনের শিকার নারী-শিশুর প্রতি সহায়তা প্রদানকারী সংস্থার সাথে এক সমন্বয় সভা ৩০ নভেম্বর সোমবার গাইবান্ধার ছিন্নমুল মহিলা সমিতির মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। ‘নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে পুরুষ ও ছেলেদের সম্পৃক্তকরণের লক্ষ্যে’ ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির আওতায় এই সমন্বয় সভাটি অনুষ্ঠিত হয়।

ব্র্যাক গাইবান্ধা জেলা সমন্বয়কারী মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই সমন্বয় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. আবদুল মতিন। সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক তোফায়েল আহমেদ, জেলা সমাজসেবা বিভাগের উপ-পরিচালক এমদাদুল হক প্রামানিক, জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নার্গিস জাহান, গাইবান্ধা প্রেসক্লাবের সভাপতি কেএম রেজাউল হক, এসকেএস ফাউন্ডেশনের মোদাচ্ছেরুজ্জামান মিলু, ফ্রেন্ডশিপের আব্দুস সালাম, জাতীয় মহিলা সংস্থা জেলা শাখার মাহমুদা খাতুন, অ্যাড. আনিস মোস্তফা তোতন, বল্লমঝাড় ইউপি চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম ঝন্টু, ব্র্যাকের জেলা ব্যবস্থাপক বিধান বাসকে, সেক্টর বিশেষজ্ঞ আরিফুল ইসলাম, কর্মী এশমা আকতার সুইটি প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ব্র্যাক রাজশাহীর আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক জিল্লুর রহমান।

প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক মো. আবদুল মতিন তাঁর বক্তব্যে উল্লেখ করেন, নারী ও শিশুদের সহিংসতা প্রতিরোধে মানসিকতা পরিবর্তন ও সার্বিক সচেতনতা সৃষ্টি একান্ত অপরিহার্য। তিনি এক্ষেত্রে নারীদের সুশিক্ষায় শিক্ষিত করে তোলার উপর গুরুত্বারোপ করেন। তিনি আরও বলেন, সমাজ, পরিবার ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে নারী ও শিশুদের সুরক্ষার বিষয়টি উঠে এলেই এক্ষেত্রে দ্রুত কার্যকর প্রতিরোধ সম্ভব।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, ২০১৬ সাল থেকে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কোচাশহর, শিবপুর, কামারদহ, গুমানিগঞ্জ ও ফুলবাড়ি ইউনিয়নের ২০টি ওয়ার্ডে নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে পুরুষ ও ছেলেদের সম্পৃক্তকরণের কর্মসূচি বাস্তবায়নের কর্মসূচি বাস্তবায়িত হচ্ছে। উক্ত কর্মসূচি বাস্তবায়নের ধারাবাহিকতায় জেলা পর্যায়ে এই সমন্বয় সভাটি অনুষ্ঠিত হয়। উল্লেখ্য, প্রকল্পটির মূল লক্ষ্য হলো- এলাকায় নারী ও শিশুদের প্রতি সহিংসতামূক্ত একটি নিরাপদ পরিবেশ সৃষ্টি এবং সেবাপ্রদানকারী সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান/সংগঠনের সাথে কার্যকর ও প্রাতিষ্ঠানিক যোগাযোগ গড়ে তোলা।

Comments

comments

Close